Home অর্থনীতি বার্তা দেশি জিনিস কে গুরুত্ব দেই বেকারত্ব কমাই

দেশি জিনিস কে গুরুত্ব দেই বেকারত্ব কমাই

95
0

কম্পিউটার ও ল্যাপটপের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ র‌্যাম তৈরির মাধ্যমে দেশীয় প্রযুক্তিপণ্য উৎপাদন শিল্পে নতুন এক মাইলফলক সৃষ্টি করেছে বাংলাদেশি টেক জায়ান্ট ওয়ালটন। ‘মেড ইন বাংলাদেশ’ খ্যাত ওয়ালটন র‌্যাম উৎপাদন কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়েছে।

প্রথমবারের মত বাংলাদেশে ওয়ালটন র‌্যাম তৈরি শুরু করেছে। ৪ জিবি, ৮ জিবি এবং ১৬ জিবি এই তিন ক্যাপাসিটির র‍্যাম বানাবে তারা। স্পিড হবে ২৪০০ এবং ২৬৬৬ মেগা হার্জের। এটি ডিডিআর ফোর র‌্যাম। কম্পিউটার ও ল্যাপটপে ব্যবহার উপযোগী।

মঙ্গলবার বিকেলে রাজধানীর আগারগাঁওয়ের পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের এমইসি সম্মেলন কক্ষ-২ এ এক অনুষ্ঠানে কেক কেটে ওয়ালটন র‌্যামের উৎপাদন কার্যক্রম উদ্বোধন করা হয়।

বাংলাদেশের বুকে এরকম সাহস দেখানো কোম্পানিগুলিকে প্রশনংসা করার দরকার নেই। অন্তত নাক সিটাকাবেন না। চীন, কোরিয়া জাপানে এই ধরনের প্রতিষ্ঠান সরাসরি সরকারের সাহায্য পায়। অন্য দেশে ব্যাবসার সুযোগ এবং বিভিন্ন ডিল করার ক্ষেত্রেও সরকারী ভাবে তারা বিশেষ সুবিধা পায়। আমাদের দেশে হয়ত সেটা সম্ভব হয়না।

আমাদের দেশ প্রেম থেকে যা করা উচিত তা হচ্ছে দেশি জিনিস কে বেশি প্রাধান্য দেওয়া।এতে আমাদের দেশ অর্থনৈতিকভাবে অনেক এগিয়ে যাবে। আমাদের দেশি জিনিস খুব একটা খারাপ না, মোটামুটি ভালো মানের।

আমরা যদি দেশি জিনিস কে বেশি প্রাধান্য দিয়ে কোম্পানিগুলো কে উৎসাহিত করতে পারি তাহলে তারা ভবিষ্যতে এর থেকে ভালো মানের প্রোডাক্ট তৈরি করতে পারবে এবং বিশ্ববাজারে নিজেদের একটা দামি ব্র্যান্ড তৈরি করতে পারবে। অর্থনীতির চাকা সচল রেখে বাংলাদেশ কে অনেক এগিয়ে নিয়ে যাবে।দেশে অনেক উদ্যোক্তা তৈরি হবে। বেকারত্বের হার কমে যাবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here